19.5 C
Kolkata
Monday, January 18, 2021
Home খবর ২১ মে থেকে রাজ্যে আরও অনেক কিছুতে ছাড়

২১ মে থেকে রাজ্যে আরও অনেক কিছুতে ছাড়

লকডাউন চলতে থাকলেও, রাজ্য কর্তৃপক্ষ  ক্রমশ নিয়ন্ত্রণ বিধি শিথিলের পথে হাঁটছে । চতুর্থ লকডাউনের মধ্যে সন্ধ্যা 7 টা থেকে সকাল সাতটা পর্যন্ত নাইট টাইম কারফিউ চালু করেছে কেন্দ্র । তবে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই রাজ্যে আনুষ্ঠানিকভাবে এটি করতে চান না। তবুও, পুলিশ সন্ধ্যা ৭ টার পরে জমায়েত দেকলে পদক্ষেপ নিতে পারে। সোমবার মুখ্যমন্ত্রী ইঙ্গিতই দিয়েছেন।

রাজ্যের মধ্যে থাকা সংক্রামণ এলাকা গুলি তিনটি উপাদানে বিভক্ত করা হচ্ছে। যে জায়গায় সংক্রমণ হয়েছে বা ঘটতে পারে, এটি কন্টেনমেন্ট অ্যাফেক্টেড (এ) রয়েছে। দ্বিতীয়  স্তরে হ’ল কন্টেন্টমেন্ট বাফার (বি) স্পেস। সরকার যে জায়গাটি পর্যবেক্ষণ করবে। তৃতীয়  স্তরে হল কন্টিনেন্ট ক্লিয়ার (সি) স্পেস। কন্টেনমেন্ট এলাকার পরিধি কমাতে তা বুথ ও ওয়ার্ডভিত্তিক করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য। বৃহত্তর-মাঝারি-ছোট দোকান-অফিসগুলি সম্ভবত বৃহস্পতিবার থেকে কন্টেন্ট ‘এ’ স্থান ছাড়াও খোলা হবে। এমনকি শপিং সেন্টারের মধ্যে কোনও অফিস থাকলে সেটি খোলা যেতে পারে। হকার্স  মার্কেট ২৭ শে মে থেকে খোলা হবে এমন ইঙ্গিত করেছে ।যে খুচরা বিক্রেতারা  জোড়-বিজোড় চিহ্নিত করে একদিন ছাড়া ছাড়া দোকান খোলা হবে। হাউজ সেক্রেটারি, পৌর সচিব এবং পুলিশ মার্কেট কমিটির সাথে আলোচনা করবেন বলে জানাল। মার্কেটে পাসের ব্যবস্থাও করবে পুলিশ। কোনও একক খুচরা বিক্রেতার পাসের প্রয়োজন নেই। দুটি যাত্রী নিয়ে অটোরিকশা রাস্তায় নামতে সক্ষম হবে।

অনেকে সেলুন এবং মিষ্টির পার্লার খোলার জন্য ওয়েট করে ছিল। রাজ্য সরকার তাদের সহায়তায় জন্য খোলার অনুমতি দিল। তবুও, প্রতিটি সেলুনের ক্ষেত্রে এবং পার্লারে ব্যবহৃত সরবরাহকারীর জীবাণু ধ্বংস করে কাজ করার নির্দেশনা দেওয়া হচ্ছে। স্টোর খোলার ক্ষেত্রে ওয়েল ওয়েলিং গাইডলাইনগুলি মানা প্রয়োজন। সেই সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর মতে, নিজের যত্ন নিজেকেও নিতে হবে।

কী জ়োনে কী ছাড়

• কন্টেনমেন্ট অ্যাফেক্টেড (এ) জ়োন: সব বন্ধ। 
• কন্টেনমেন্ট বাফার (বি) জ়োন: কিছু নিয়ন্ত্রণ। 
• কন্টেনমেন্ট ক্লিন (সি) জ়োন: পুরোটাই খোলা।  
২১ মে থেকে যা যা খুলবে
• বড়, মাঝারি, ছোট দোকান  • আন্তর্জেলা বাস • সেলুন এবং বিউটি পার্লার • ৫০%
কর্মী শিল্পক্ষেত্র, বেসরকারি অফিসে। • জমায়েতশূন্য খেলা (গল্ফ, টেবল টেনিস, লন টেনিসের মতো খেলা) • শপিং মলের মধ্যে অফিস

২৭ মে থেকে চালু

• হকার্স মার্কেট 
• দু’জন নিয়ে অটোরিকশা 

লকডাউনটি রাজ্যের মধ্যে 31শে মে টি পর্যন্ত চলবে। তবুও, রাতের সময় কারফিউ প্রয়োগ করা উচিত নয়। জমায়েত হিসাবে ৭ জনের বিকল্প হিসাবে 15 জনকে ছাড় দেওয়া হয়েছে।  বিধি ভাঙলে  পুলিশ পদক্ষেপ নেবে। বর্তমান সময়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, “চাপের কারণে মানুষের দম বন্ধ করা উচিত নয়। সন্ধ্যা 7 টার পরে বাইরে থাকবেন না। এটি আপনার কাছে অনুরোধ রইল। কারফিউ আইন আপনাদের উপরে বলবৎ না-হয়, মাথায় রাখবেন। যদি সন্ধ্যা ৭ টার পরে যে কেউ বাইরে বেরোন বা জড়ো হয়, পুলিশ পদক্ষেপ নেবে।রাজ্য সরকার অবশ্যই লোকদের অসুবিধার কারণ হতে পারে এমন কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করবে না।কয়েকদিন পরে ইদ। শক্ত হলেও বাড়িতে বসেই তা পালন করার কথা বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর কথায়, ‘‘ইদও বাড়িতে পালন করতে হতে পারে। কোনও সম্প্রদায় নিয়ে যেন রাজনীতি করা না-হয়। অপপ্রচার যেন না-হয়।’’  “

Most Popular

TODAY'S TOP NEWS